ঢাকা , বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৪, ১১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আপডেট :
ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে পূর্ব লন্ডনে বড়লেখার সোয়েব আহমেদের সমর্থনে মতবিনিময় সভা ইতালির ভেনিসে গ্রিন সিলেট ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন এর জরুরি সভা অনুষ্ঠিত ইতালির ভেনিসে এনটিভির ইউরোপের ডিরেক্টর সাবরিনা হোসাইন কে সংবর্ধনা দিয়েছে ইউরোপিয়ান বাংলা প্রেসক্লাব পর্তুগালে বেজা আওয়ামীলীগের কর্মি সভা পর্তুগাল এ ফ্রেন্ডশিপ ক্রিকেট ক্লাবের জার্সি উন্মোচন লিসবনে আত্মপ্রকাশ হয় সামাজিক সংগঠন “গোলাপগঞ্জ কমিউনিটি কেয়ারর্স পর্তুগাল “ উচ্ছ্বাস আর আনন্দে বাঙালির প্রাণের উৎসব পহেলা বৈশাখের উদযাপন করেছে পর্তুগাল যথাযথ গাম্ভীর্যের মধ্যে দিয়ে পরিবেশে মুসলমানদের ধর্মীয় উৎসব ঈদুল ফিতর পালন করেছে ভেনিস প্রবাসীরা ভেনিসে বৃহত্তর সিলেট সমিতির আয়োজনে ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠিত এক অসুস্থ প্রজন্ম কে সাথি করে এগুচ্ছি আমরা

দীর্ঘদিনের দাবি আদায় হলো, সিসিক’র আওতায় শাবি

নিউজ ডেস্ক
  • আপডেটের সময় : ১১:৩০ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০
  • / ৭২৩ টাইম ভিউ

সিলেট সিটি করপোরেশনের (সিসিক) পরিধি নতুনভাবে সম্প্রসারণ হওয়ায় এর অন্তর্ভুক্ত হচ্ছে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (শাবিপ্রবি)। সিসিক সম্প্রসারণের জন্য এক গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছে সিলেট জেলা প্রশাসন। এতে শাবিপ্রবিও অন্তর্ভুক্ত হয়েছে।

অন্তর্ভুক্তির বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার মো. ইশফাকুল হোসেন বলেন, ‘দীর্ঘদিন ধরে আমাদের দাবি ছিল শাবিপ্রবিকে সিলেট সিটি করপোরেশন এলাকায় অন্তর্ভুক্ত করার। অবশেষে সিলেট জেলা প্রশাসন গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছে। এতে আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ও অন্তর্ভুক্ত হয়েছে। আশা করি এই অন্তর্ভুক্তির ফলে বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন কাজ আরও ত্বরান্বিত হবে।’

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘শিক্ষকদের দীর্ঘদিনের দাবি এবং আমাদের প্রচেষ্টার ফলে শাবিপ্রবি সিসিক’র অন্তর্ভুক্ত হয়েছে। এটি আমাদের জন্য অত্যন্ত আনন্দের ও গর্বের বিষয়। আশা করি সামনে এটি আমাদের জন্য সুদিন বয়ে আনবে। এ অন্তর্ভুক্তির সুফল শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ সকলে ভোগ করবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা প্রতিবছর বিশ্ববিদ্যালয়ের রাস্তাঘাট মেরামত, লাইটিংসহ বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ করি। অনেক উন্নয়নমূলক কাজ আছে যেগুলো বিশ্ববিদ্যালয়ের বাজেট দিয়ে করা সম্ভব হয়ে ওঠে না। তবে সিসিক’র বাজেট অনেক বড়। তা থেকে যদি আমরা কিছু অংশ পাই তাহলে আমাদের উন্নয়ন কাজগুলো আরও সুন্দর ও টেকসইভাবে করা সম্ভব হবে। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন কাজগুলোকে আরও একধাপ এগিয়ে নিয়ে যাওয়া যাবে।’

দীর্ঘদিনের এ দাবি পূরণ করতে উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ বিশ্ববিদ্যালয়ের দায়িত্ব পাওয়ার পর থেকে বিভিন্ন উদ্যোগ নিয়েছিলেন। এ নিয়ে সিলেট সিটি করপোরেশনের সঙ্গেও বেশ কয়েকবার আলোচনা করেছিলেন তিনি। অবশেষে সিলেট-১ আসনের সাংসদ ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন নগরের আয়তন বাড়ানোর প্রস্তাবে একাত্মতা পোষণ করে এর করণীয় সম্পর্কে দিকনির্দেশনা দেন। সবমিলিয়ে দীর্ঘদিন পর শাবিপ্রবি সিসিক’র অন্তর্ভুক্তির বিষয়টি আলোর মুখ দেখছে।

পোস্ট শেয়ার করুন

দীর্ঘদিনের দাবি আদায় হলো, সিসিক’র আওতায় শাবি

আপডেটের সময় : ১১:৩০ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০

সিলেট সিটি করপোরেশনের (সিসিক) পরিধি নতুনভাবে সম্প্রসারণ হওয়ায় এর অন্তর্ভুক্ত হচ্ছে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (শাবিপ্রবি)। সিসিক সম্প্রসারণের জন্য এক গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছে সিলেট জেলা প্রশাসন। এতে শাবিপ্রবিও অন্তর্ভুক্ত হয়েছে।

অন্তর্ভুক্তির বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার মো. ইশফাকুল হোসেন বলেন, ‘দীর্ঘদিন ধরে আমাদের দাবি ছিল শাবিপ্রবিকে সিলেট সিটি করপোরেশন এলাকায় অন্তর্ভুক্ত করার। অবশেষে সিলেট জেলা প্রশাসন গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছে। এতে আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ও অন্তর্ভুক্ত হয়েছে। আশা করি এই অন্তর্ভুক্তির ফলে বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন কাজ আরও ত্বরান্বিত হবে।’

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘শিক্ষকদের দীর্ঘদিনের দাবি এবং আমাদের প্রচেষ্টার ফলে শাবিপ্রবি সিসিক’র অন্তর্ভুক্ত হয়েছে। এটি আমাদের জন্য অত্যন্ত আনন্দের ও গর্বের বিষয়। আশা করি সামনে এটি আমাদের জন্য সুদিন বয়ে আনবে। এ অন্তর্ভুক্তির সুফল শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ সকলে ভোগ করবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা প্রতিবছর বিশ্ববিদ্যালয়ের রাস্তাঘাট মেরামত, লাইটিংসহ বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ করি। অনেক উন্নয়নমূলক কাজ আছে যেগুলো বিশ্ববিদ্যালয়ের বাজেট দিয়ে করা সম্ভব হয়ে ওঠে না। তবে সিসিক’র বাজেট অনেক বড়। তা থেকে যদি আমরা কিছু অংশ পাই তাহলে আমাদের উন্নয়ন কাজগুলো আরও সুন্দর ও টেকসইভাবে করা সম্ভব হবে। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন কাজগুলোকে আরও একধাপ এগিয়ে নিয়ে যাওয়া যাবে।’

দীর্ঘদিনের এ দাবি পূরণ করতে উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ বিশ্ববিদ্যালয়ের দায়িত্ব পাওয়ার পর থেকে বিভিন্ন উদ্যোগ নিয়েছিলেন। এ নিয়ে সিলেট সিটি করপোরেশনের সঙ্গেও বেশ কয়েকবার আলোচনা করেছিলেন তিনি। অবশেষে সিলেট-১ আসনের সাংসদ ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন নগরের আয়তন বাড়ানোর প্রস্তাবে একাত্মতা পোষণ করে এর করণীয় সম্পর্কে দিকনির্দেশনা দেন। সবমিলিয়ে দীর্ঘদিন পর শাবিপ্রবি সিসিক’র অন্তর্ভুক্তির বিষয়টি আলোর মুখ দেখছে।