ঢাকা , মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ৭ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আপডেট :
বাংলাদেশে কোটা আন্দোলনে হত্যার প্রতিবাদে পর্তুগালে বিক্ষোভ করেছে বাংলাদেশী প্রবাসীরা প্রিয়জনদের মানসিক রোগ যদি আপনজন বুঝতে না পারেন আওয়ামীলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা ও অভিষেক অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে আওয়ামীলীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা করেছে পর্তুগাল আওয়ামীলীগ যেকোনো প্রচেষ্টা এককভাবে সম্পন্ন করা সম্ভব নয়: দুদক সচিব শ্রীমঙ্গলে দুটি চোরাই মোটরসাইকেল সহ মিল্টন কুমার আটক পর্তুগালের অভিবাসন আইনে ব্যাপক পরিবর্তন পর্তুগাল বিএনপি আহবায়ক কমিটির জুমে জরুরী সভা অনুষ্ঠিত হয় এমপি আনোয়ারুল আজিমকে হত্যার ঘটনায় আটক তিনজন , এতে বাংলাদেশী মানুষ জড়িত:স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ঢাকাস্থ ইরান দুতাবাসে রাইসির শোক বইয়ে মির্জা ফখরুলের স্বাক্ষর

জনগণের কাছে গ্রহণযোগ্যতা না থাকলে মনোনয়ন নয় : কাদের

অনলাইন ডেস্ক :
  • আপডেটের সময় : ১২:৫৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুলাই ২০১৭
  • / ১০০৪ টাইম ভিউ

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সারা দেশে এখন জরিপ চলছে। জরিপের পর তৃণমূলের মতামত নিয়ে মনোনয়ন দেয়া হবে। যাদের ইমেজ নেই, ভাবমূর্তি নষ্ট ও জনগণের কাছে গ্রহণযোগ্যতা নেই তাদের মনোয়নয়ন দেয়া হবে না। এ নিয়ে ছাত্রলীগ কারোর পক্ষ নেবে না। ছাত্রলীগ নৌকার পক্ষে কাজ করবে। রাজনীতির আদর্শ হবে বঙ্গবন্ধু। আর একমাত্র নেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর বাইরে ছাত্রলীগ কোনো নেতার স্বার্থ রক্ষার হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার হবে না।’
তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে। এখন স্লোগানের রাজনীতি বন্ধ করে পজেটিভ অ্যাকশানের রাজনীতি করতে হবে। ভাষণ কম দিয়ে কাজ করতে হবে বেশি। সেই কর্মতৎপরতায় ছাত্রলীগকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে। আজ সোমবার যশোর জেলা ছাত্রলীগের ১৭তম বার্ষিক সম্মেলনের প্রথম অধিবেশনের প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। সম্মেলনের দ্বিতীয় অধিবেশনে বর্তমান কমিটি ভেঙে ছাত্রলীগের নতুন কমিটি গঠন করা হবে।
শহরের ঈদগা ময়দানে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে প্রধান অতিথি ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, ‘ছাত্রলীগের কমিটিতে কোনো মাদকাসক্ত, অছাত্র, সন্ত্রাসীদের স্থান হবে না। গঠনতন্ত্র অনুযায়ী নতুন কমিটি গঠন করতে হবে। মেধাবীদের রাজনীতিতে আসতে হবে। তা না হলে অশিক্ষিত, সন্ত্রাসী আর অযোগ্যরা নেতা হবে। তারা সংসদ সদস্য হয়ে যাবে।’
যশোর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আরিফুল ইসলাম রিয়াদের সভাপতিত্বে সম্মেলনে আরো বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সংসদ সদস্য আব্দুর রহমান, ছাত্রলীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক সাইফুজ্জামান শিখর, সাবেক সভাপতি এইচএম বদিউজ্জামান সোহাগ, বর্তমান সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন প্রমুখ।
যশোর জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন বিপুলের পরিচালনায় যশোর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুজ্জামান পিকুল, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সাধারণ সম্পাদক সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শাহীন চাকলাদার, সংসদ সদস্য শেখ আফিল উদ্দিন, সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মনিরুল ইসলাম, সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ, সংসদ সদস্য রনজিৎ কুমার রায়, সংসদ সদস্য স্বপন ভট্টাচার্য্য, যশোর পৌরসভার মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টু, ছাত্রলীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জয়দেব নন্দী, সাবেক পাঠাগার সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন দিপু, ছাত্রলীগের বর্তমান সহ-সভাপতি আনোয়ার হোসেন আনু, মাসুমা আক্তার পলি, উপ-স্কুল ছাত্রবিষয়ক সম্পাদক কাওছার হক, উপনাট্য বিতর্ক সম্পাদক সোহানী হাসান তিথী প্রমুখ।

পোস্ট শেয়ার করুন

জনগণের কাছে গ্রহণযোগ্যতা না থাকলে মনোনয়ন নয় : কাদের

আপডেটের সময় : ১২:৫৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুলাই ২০১৭

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সারা দেশে এখন জরিপ চলছে। জরিপের পর তৃণমূলের মতামত নিয়ে মনোনয়ন দেয়া হবে। যাদের ইমেজ নেই, ভাবমূর্তি নষ্ট ও জনগণের কাছে গ্রহণযোগ্যতা নেই তাদের মনোয়নয়ন দেয়া হবে না। এ নিয়ে ছাত্রলীগ কারোর পক্ষ নেবে না। ছাত্রলীগ নৌকার পক্ষে কাজ করবে। রাজনীতির আদর্শ হবে বঙ্গবন্ধু। আর একমাত্র নেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর বাইরে ছাত্রলীগ কোনো নেতার স্বার্থ রক্ষার হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার হবে না।’
তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে। এখন স্লোগানের রাজনীতি বন্ধ করে পজেটিভ অ্যাকশানের রাজনীতি করতে হবে। ভাষণ কম দিয়ে কাজ করতে হবে বেশি। সেই কর্মতৎপরতায় ছাত্রলীগকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে। আজ সোমবার যশোর জেলা ছাত্রলীগের ১৭তম বার্ষিক সম্মেলনের প্রথম অধিবেশনের প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। সম্মেলনের দ্বিতীয় অধিবেশনে বর্তমান কমিটি ভেঙে ছাত্রলীগের নতুন কমিটি গঠন করা হবে।
শহরের ঈদগা ময়দানে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে প্রধান অতিথি ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, ‘ছাত্রলীগের কমিটিতে কোনো মাদকাসক্ত, অছাত্র, সন্ত্রাসীদের স্থান হবে না। গঠনতন্ত্র অনুযায়ী নতুন কমিটি গঠন করতে হবে। মেধাবীদের রাজনীতিতে আসতে হবে। তা না হলে অশিক্ষিত, সন্ত্রাসী আর অযোগ্যরা নেতা হবে। তারা সংসদ সদস্য হয়ে যাবে।’
যশোর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আরিফুল ইসলাম রিয়াদের সভাপতিত্বে সম্মেলনে আরো বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সংসদ সদস্য আব্দুর রহমান, ছাত্রলীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক সাইফুজ্জামান শিখর, সাবেক সভাপতি এইচএম বদিউজ্জামান সোহাগ, বর্তমান সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন প্রমুখ।
যশোর জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন বিপুলের পরিচালনায় যশোর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুজ্জামান পিকুল, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সাধারণ সম্পাদক সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শাহীন চাকলাদার, সংসদ সদস্য শেখ আফিল উদ্দিন, সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মনিরুল ইসলাম, সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ, সংসদ সদস্য রনজিৎ কুমার রায়, সংসদ সদস্য স্বপন ভট্টাচার্য্য, যশোর পৌরসভার মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টু, ছাত্রলীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জয়দেব নন্দী, সাবেক পাঠাগার সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন দিপু, ছাত্রলীগের বর্তমান সহ-সভাপতি আনোয়ার হোসেন আনু, মাসুমা আক্তার পলি, উপ-স্কুল ছাত্রবিষয়ক সম্পাদক কাওছার হক, উপনাট্য বিতর্ক সম্পাদক সোহানী হাসান তিথী প্রমুখ।