ঢাকা , শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

‘গ্রীনফেল টাওয়ার’ অগ্নিকাণ্ডে নিহতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৭

অনলাইন ডেস্ক :
  • আপডেটের সময় : ১১:৫৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৫ জুন ২০১৭
  • / ১৪৬৭ টাইম ভিউ

লন্ডনের পশ্চিমাঞ্চলের ‘গ্রীনফেল টাওয়ার’ নামের ২৭ তলা ভবনে অগ্নিকাণ্ডে হতাহতের সংখ্যা ১৭ তে পৌঁছেছে। পুলিশ বলছে, উদ্ধার তৎপরতা শেষ হলে এ সংখ্যা আরো বাড়তে পারে। সত্তরজনের বেশি মানুষকে শহরের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের অবস্থা আশংকাজনক।
আগুন লাগার আগে নর্থ কেনসিংটনের ঐ ভবনটিতে সংস্কার কাজ চলছিল। সেসময় ভবনের বাসিন্দাদের অনেকেই গুরুতর অগ্নিকাণ্ডের ঝুঁকির ব্যাপারে কর্তৃপক্ষকে সাবধান করেছিলেন বলে জানা যাচ্ছে। এরপর গতকাল যখন আগুন ধরে যায় গ্রীনফেল টাওয়ারে, ভবনটির বাইরের দিকের আচ্ছাদনে ব্যবহৃত সামগ্রীর কারণে আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে বলে বাসিন্দাদের মধ্যে যারা পালাতে পেরেছেন, তারা অভিযোগ করেছেন।
তবে, ঠিক কি কারণে এবং কিভাবে সেখানে আগুন লাগলো সে নিয়ে এখনো পর্যন্ত কর্তৃপক্ষ কিছু জানাতে পারেনি। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, ভবনটিতে এখনো অনেকে আটকে রয়েছেন। বাঁচার জন্য কেউ কেউ জানালা দিয়ে লাফিয়ে পড়েছেন নিচে। তবে, ভবনের অনেক বাসিন্দা এখনো নিখোঁজ রয়েছেন।
স্বজন ও বন্ধুরা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাদের সম্পর্কে তথ্য চেয়ে পোষ্ট দিচ্ছেন। ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে বলেছেন, এ ঘটনা তদন্তে একটি কমিটি গঠন করা হবে। এবং এ ঘটনা থেকে প্রয়োজনীয় শিক্ষা গ্রহণ করা হবে। ধারণা করা হচ্ছে, ভবনটিতে যখন আগুন লাগে সেখানে কয়েকশো মানুষ ছিলেন, যাদের বেশিরভাগ সেসময় ঘুমিয়ে ছিলেন। ভবনটিতে মোট ১২০টি ফ্ল্যাট রয়েছে। বিবিসি।

পোস্ট শেয়ার করুন

‘গ্রীনফেল টাওয়ার’ অগ্নিকাণ্ডে নিহতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৭

আপডেটের সময় : ১১:৫৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৫ জুন ২০১৭

লন্ডনের পশ্চিমাঞ্চলের ‘গ্রীনফেল টাওয়ার’ নামের ২৭ তলা ভবনে অগ্নিকাণ্ডে হতাহতের সংখ্যা ১৭ তে পৌঁছেছে। পুলিশ বলছে, উদ্ধার তৎপরতা শেষ হলে এ সংখ্যা আরো বাড়তে পারে। সত্তরজনের বেশি মানুষকে শহরের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের অবস্থা আশংকাজনক।
আগুন লাগার আগে নর্থ কেনসিংটনের ঐ ভবনটিতে সংস্কার কাজ চলছিল। সেসময় ভবনের বাসিন্দাদের অনেকেই গুরুতর অগ্নিকাণ্ডের ঝুঁকির ব্যাপারে কর্তৃপক্ষকে সাবধান করেছিলেন বলে জানা যাচ্ছে। এরপর গতকাল যখন আগুন ধরে যায় গ্রীনফেল টাওয়ারে, ভবনটির বাইরের দিকের আচ্ছাদনে ব্যবহৃত সামগ্রীর কারণে আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে বলে বাসিন্দাদের মধ্যে যারা পালাতে পেরেছেন, তারা অভিযোগ করেছেন।
তবে, ঠিক কি কারণে এবং কিভাবে সেখানে আগুন লাগলো সে নিয়ে এখনো পর্যন্ত কর্তৃপক্ষ কিছু জানাতে পারেনি। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, ভবনটিতে এখনো অনেকে আটকে রয়েছেন। বাঁচার জন্য কেউ কেউ জানালা দিয়ে লাফিয়ে পড়েছেন নিচে। তবে, ভবনের অনেক বাসিন্দা এখনো নিখোঁজ রয়েছেন।
স্বজন ও বন্ধুরা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাদের সম্পর্কে তথ্য চেয়ে পোষ্ট দিচ্ছেন। ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে বলেছেন, এ ঘটনা তদন্তে একটি কমিটি গঠন করা হবে। এবং এ ঘটনা থেকে প্রয়োজনীয় শিক্ষা গ্রহণ করা হবে। ধারণা করা হচ্ছে, ভবনটিতে যখন আগুন লাগে সেখানে কয়েকশো মানুষ ছিলেন, যাদের বেশিরভাগ সেসময় ঘুমিয়ে ছিলেন। ভবনটিতে মোট ১২০টি ফ্ল্যাট রয়েছে। বিবিসি।