ঢাকা , শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আপডেট :
এমপি আনোয়ারুল আজিমকে হত্যার ঘটনায় আটক তিনজন , এতে বাংলাদেশী মানুষ জড়িত:স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ঢাকাস্থ ইরান দুতাবাসে রাইসির শোক বইয়ে মির্জা ফখরুলের স্বাক্ষর মুটো ফোনের আসক্তি দূর করবেন যেভাবে… এই অভ্যাসগুলোর চর্চা নিয়মিত করা উচিৎ স্বামী-স্ত্রীর বয়সের পার্থক্য থাকা জরুরি কেনো ? পুনাক এর উদ্যোগে দুস্হ ও অসহায় নারীদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরন করা হয়েছে কুলাউড়ার টিলাগাঁও এ সরকারি গাছ বিক্রি করলেন প্রধান শিক্ষক লটারি বাইক জিতলো মা’ সে কারণে কপাল পুড়লো মেয়ের ফজরের নামাজে যাওয়ার সময় রাস্তায় কুকুর দলের আক্রমনে প্রান গেলো ইজাজুলের সাবেক সাংসদ সেলিমা আহমাদ মেরীর সাথে পর্তুগাল আওয়ামিলীগের মতবিনিময় সভা

এবার কোটি টাকার তক্ষক পাচারের সময় আটক ৩

নিউজ ডেস্ক
  • আপডেটের সময় : ০৩:২৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ১২ জানুয়ারী ২০২০
  • / ৩৫২ টাইম ভিউ

নেত্রকোনার সীমান্ত এলাকায় পাচারকালে তিন পাচারকারীকে আটক ও বিলুপ্ত প্রজাতির কোটি টাকার একটি তক্ষক উদ্ধার করেছে কলমাকান্দা থানা পুলিশ।

গত শুক্রবার গভীর রাতে উপজেলার কচুগড়া এলাকা থেকে পাচারকারী দলের তিন সদস্য গোপালগঞ্জ জেলার কোটালিপাড়া থানার কনের ভিটা গ্রামের হরকান্ত বারইয়ের ছেলে সহদেব বারই (৩৩), কলাবাড়ি গ্রামের রামলাল রায়ের ছেলে সূর্যকান্ত রায় (৫৯) ও প্রেমচান বারইয়ের ছেলে পরিতোষ রায়সহ (৪৮)। তক্ষকটি আটক করা হয়।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুক্রবার গভীর রাতে কলমাকান্দা থানা পুলিশ উপজেলার কচুগড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে সীমান্ত এলাকায় শুক্রবার গভীর রাতে তক্ষকসহ চোরাকারবারিদের আটক করা হয়।

আটককৃতরা পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে জানায়, ৫০ হাজার টাকা দিয়ে কোন এক গারোর কাছ থেকে তক্ষকটি ক্রয় করে কোটি টাকায় বিক্রি করার আশায় গোপনে পাচার করছিল। তক্ষকটির প্রকৃত মূল্য কত হতে পারে তা নিশ্চিত করে কেউ বলতে পারেনি। এর প্রকৃত মূল্য নিয়ে বিভ্রান্তি রয়েছে বলেও জানা যায়।

কলমাকান্দা থানার ওসি মো. মাজহারুল করিম সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, পাচারকারীদের বিরুদ্ধে বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। তারা একটি বড় ধরনের পাচারকারী দলের সদস্য বলেও বলে জানান।

পোস্ট শেয়ার করুন

এবার কোটি টাকার তক্ষক পাচারের সময় আটক ৩

আপডেটের সময় : ০৩:২৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ১২ জানুয়ারী ২০২০

নেত্রকোনার সীমান্ত এলাকায় পাচারকালে তিন পাচারকারীকে আটক ও বিলুপ্ত প্রজাতির কোটি টাকার একটি তক্ষক উদ্ধার করেছে কলমাকান্দা থানা পুলিশ।

গত শুক্রবার গভীর রাতে উপজেলার কচুগড়া এলাকা থেকে পাচারকারী দলের তিন সদস্য গোপালগঞ্জ জেলার কোটালিপাড়া থানার কনের ভিটা গ্রামের হরকান্ত বারইয়ের ছেলে সহদেব বারই (৩৩), কলাবাড়ি গ্রামের রামলাল রায়ের ছেলে সূর্যকান্ত রায় (৫৯) ও প্রেমচান বারইয়ের ছেলে পরিতোষ রায়সহ (৪৮)। তক্ষকটি আটক করা হয়।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুক্রবার গভীর রাতে কলমাকান্দা থানা পুলিশ উপজেলার কচুগড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে সীমান্ত এলাকায় শুক্রবার গভীর রাতে তক্ষকসহ চোরাকারবারিদের আটক করা হয়।

আটককৃতরা পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে জানায়, ৫০ হাজার টাকা দিয়ে কোন এক গারোর কাছ থেকে তক্ষকটি ক্রয় করে কোটি টাকায় বিক্রি করার আশায় গোপনে পাচার করছিল। তক্ষকটির প্রকৃত মূল্য কত হতে পারে তা নিশ্চিত করে কেউ বলতে পারেনি। এর প্রকৃত মূল্য নিয়ে বিভ্রান্তি রয়েছে বলেও জানা যায়।

কলমাকান্দা থানার ওসি মো. মাজহারুল করিম সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, পাচারকারীদের বিরুদ্ধে বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। তারা একটি বড় ধরনের পাচারকারী দলের সদস্য বলেও বলে জানান।