ঢাকা , মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আপডেট :
পুনাক এর উদ্যোগে দুস্হ ও অসহায় নারীদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরন করা হয়েছে কুলাউড়ার টিলাগাঁও এ সরকারি গাছ বিক্রি করলেন প্রধান শিক্ষক লটারি বাইক জিতলো মা’ সে কারণে কপাল পুড়লো মেয়ের ফজরের নামাজে যাওয়ার সময় রাস্তায় কুকুর দলের আক্রমনে প্রান গেলো ইজাজুলের সাবেক সাংসদ সেলিমা আহমাদ মেরীর সাথে পর্তুগাল আওয়ামিলীগের মতবিনিময় সভা কুলাউড়ার হাজীপুরে বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যার ১২ ঘন্টার মধ্যেই দুজন গ্রেফতার কুলাউড়ার হাজীপুর ইউনিয়নে প্রতিপক্ষের হামলায়  আছকির মিয়া (৫০)নিহত  হয়েছেন। বর্ণাঢ্য আয়োজনে পর্তুগাল বিএনপির আহবায়ক কমিটির অভিষেক ও পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত। সিলেট বিভাগের শ্রেষ্ঠ মাদ্রাসা প্রধান নির্বাচিত হলেন অধ্যক্ষ মাওলানা বশির আহমদ মুসলিম কমিউনিটি মৌলভীবাজার এর কমিটি গঠন

এক দশকে ফ্রান্সে সরকারি কর্মীদের সবচেয়ে বড় ধর্মঘট চলছে

নিউজ ডেস্ক
  • আপডেটের সময় : ০৭:৪৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৫ ডিসেম্বর ২০১৯
  • / ৪৫২ টাইম ভিউ

দেশদিগন্ত ডেস্ক: পেনশন সংস্কারের দাবিতে লাখো বিক্ষোভকারীর অংশগ্রহণে ফ্রান্সে এক দশকের মধ্যে সবচেয়ে বড় ধর্মঘট শুরু হয়েছে।
বৃহস্পতিবার দেশজুড়ে সরকারি কর্মকর্তাদের পেনশন কমানো ও বাধ্য করে চাকরির সময়সীমা বাড়ানোর প্রতিবাদে কাজ বন্ধ করেছেন লাখ লাখ কর্মজীবী মানুষ।
প্রতিবাদ কর্মসূচিতে স্কুল ও পরিবহণ শ্রমিক, পুলিশ, আইনজীবী এবং হাসপাতাল এবং বিমানবন্দরের কর্মীরা যোগদান করেছেন। দেশের অর্ধেকেরও বেশি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রনের অবসর সংক্রান্ত কর্মসূচির বিরোধিতা করে এই ধর্মঘটের ডাক দেয় বিভিন্ন লেবার ইউনিয়ন। ম্যাক্রন অবসর সংক্রান্ত পরিকল্পনা পরিবর্তন না করলে এই আন্দোলন চালিয়ে যাওয়া হুঁশিয়ারি দিয়েছেন নেতারা।
ধর্মঘটের কারণে দেশটিতে মারাত্মক অচলাবস্থা দেখা দিয়েছে। সহিংসতা এড়াতে প্রায় ছয় হাজার পুলিশ মোতায়েন করা হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পোস্ট শেয়ার করুন

এক দশকে ফ্রান্সে সরকারি কর্মীদের সবচেয়ে বড় ধর্মঘট চলছে

আপডেটের সময় : ০৭:৪৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৫ ডিসেম্বর ২০১৯

দেশদিগন্ত ডেস্ক: পেনশন সংস্কারের দাবিতে লাখো বিক্ষোভকারীর অংশগ্রহণে ফ্রান্সে এক দশকের মধ্যে সবচেয়ে বড় ধর্মঘট শুরু হয়েছে।
বৃহস্পতিবার দেশজুড়ে সরকারি কর্মকর্তাদের পেনশন কমানো ও বাধ্য করে চাকরির সময়সীমা বাড়ানোর প্রতিবাদে কাজ বন্ধ করেছেন লাখ লাখ কর্মজীবী মানুষ।
প্রতিবাদ কর্মসূচিতে স্কুল ও পরিবহণ শ্রমিক, পুলিশ, আইনজীবী এবং হাসপাতাল এবং বিমানবন্দরের কর্মীরা যোগদান করেছেন। দেশের অর্ধেকেরও বেশি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রনের অবসর সংক্রান্ত কর্মসূচির বিরোধিতা করে এই ধর্মঘটের ডাক দেয় বিভিন্ন লেবার ইউনিয়ন। ম্যাক্রন অবসর সংক্রান্ত পরিকল্পনা পরিবর্তন না করলে এই আন্দোলন চালিয়ে যাওয়া হুঁশিয়ারি দিয়েছেন নেতারা।
ধর্মঘটের কারণে দেশটিতে মারাত্মক অচলাবস্থা দেখা দিয়েছে। সহিংসতা এড়াতে প্রায় ছয় হাজার পুলিশ মোতায়েন করা হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।