ইংল্যান্ডের ওর্থিংয়ের প্রথম নারী মুসলিম কাউন্সিলর বাংলাদেশি হেনা চৌধুরি !

শনিবার, ১১ মে ২০১৯ | ৯:৩০ অপরাহ্ণ | 141 বার

ইংল্যান্ডের ওর্থিংয়ের প্রথম নারী মুসলিম কাউন্সিলর বাংলাদেশি হেনা চৌধুরি !

ইংল্যান্ডের পশ্চিম সাসেক্সের উপকূলীয় শহর ওর্থিং থেকে প্রথম নারী মুসলিম কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত নারী হেনা চৌধুরি।

হেনা ওর্থিংয়ের গ্যাসফোর্ড ওয়ার্ড থেকে ১ হাজার ২১৩ ভোট পেয়ে কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী কনজারভেটিভ দলের ঝানু রাজনীতিবিদ ব্রায়ান টারনার পেয়েছেন ৩০০ ভোট। দ্য আরগুস, ওর্থিং হেরাল্ড

ওর্থিং অ্যাসেম্বলি হলে নির্বাচনের ফলাফল যখন ঘোষণা হচ্ছিল সমর্থকদের উল্লাসে আনন্দে কেঁদে ফেলেন হেনা। তিনি বলেন, ‘আমি ভাষা হারিয়েছি। আমি ভাবি নি প্রথম এশিয়ান বাংলাদেশি নারী ও একজন মুসলিম হিসেবে গ্যাসফোর্ডে প্রবেশ করতে পারব, রেকর্ড ভাঙব।’

হেনা আরো বলেন, ‘আমরা সবাই আজকের এই বিজয়ের জন্য অনেক পরিশ্রম করেছি। সকাল সাতটা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত টানা ১৫ ঘণ্টা আমি ভোটকেন্দ্রে ছিলাম। আমি চাই নি একজন ভোটারও এসে দেখুক কোন প্রার্থী ভোটকেন্দ্রে নেই।

সেখানে সবার ভালবাসা ও সমর্থন দেখেছি। তারা আমার ওপর যে বিশ্বাস রেখেছেন আমি এখন তাদের তা ফেরত দেব। আমি আমার হাজব্যান্ডকে বলেছিলাম, যদি আমি নাও জিততে পরি তবু আমি খুশি, কারণ মানুষের কাছ থেকে যে সম্মান পেয়েছি তা অভাবনীয়।’

হেনা জানান, ‘আমাকে বলা হয়েছিলো আমি অনেক শক্তিশালী বিরোধী প্রার্থীর বিরুদ্ধে লড়ছি। কিন্তু অনেক ইতিবাচক মানুষ রয়েছেন, যাদের ভালবাসা ও শ্রদ্ধার কারণে আজ আমি এখানে। তাদের প্রত্যেককে সাহায্য করার জন্য এখন আমি প্রস্তুত।’

বৃহস্পতিবারের নির্বাচনে জয় পাওয়া ৫ লেবার প্রার্থীর মধ্যে একজন হেনা, যাদের মধ্যে চারজনই নারী। ওর্থিংয়ের ২২ জন কাউন্সিলরের লেবার দল থেকে রয়েছেন ১০জন,

কনজারভেটিভ দলের ৭ জন কাউন্সিলর, তিন জন লিবারেল ডেমোক্রেট, একজন ইউকিপ ও একজন স্বাধীন প্রার্থী । লেবার দলের বেচি কপার বলেন, ‘আমাদের বেশিরভাগ কাউন্সিরলই নারী, তারা চিরায়ত ধারা ভেঙ্গেছেন, হেনার বিজয় সত্যিকার অর্থেই চমৎকার।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

১৬টি বছর খুব সুন্দর ছিলো’ চিরকুটে আত্মহননকারী কলেজ ছাত্রী

deshdiganto.com © 2019 কপিরাইট এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত

design and development by : TAP.Com